কম্বোডিয়া ভিসার দাম কত ২০২৪

এই কম্বোডিয়া দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার একটি দেশ। এই কম্বোডিয়া দেশের আয়তন ১,৮১,০৩৫ বর্গকিলোমিটার। এ দেশটির উত্তর -পশ্চিমে থাইল্যান্ড এবং উত্তরে লাওস এবং পূর্বে ভিয়েতনাম অবস্থিত। এই বর্তমানে এই দেশের জনসংখ্যা ১৭ মিলিয়নেরও বেশি। তবে প্রাকৃতিক দিক দিয়ে কম্বোডিয়া বাংলাদেশের থেকে অনেক বেশি সৌন্দর্যপূর্ণ।

এক্ষেত্রে আপনি বাংলাদেশ থেকে কম্বোডিয়া কয়েকটি ভিসার মাধ্যমে যেতে পারবেন। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য টুরিস্ট ভিসা, স্টুডেন্ট ভিসা এবং ওয়ার্ক পারমিট ভিসা। তবে বহু বাংলাদেশী নাগরিক পূর্বে এবং বর্তমানে কম্বোডিয়া যাওয়ার জন্য বিভিন্ন ক্যাটাগরির ভিসা তৈরি করছেন। তবে কম্বোডিয়া ভিসার দাম কত এ সম্পর্কে অনেকের সঠিক ধারণা নেই। তাই সঠিক ধারণা পেতে সম্পূর্ণ পোস্ট পড়ুন বিস্তারিত।

কম্বোডিয়া ভিসার দাম কত

এদেশের ১০০ শতাংশের মধ্যে ৯৭ শতাংশ বৌদ্ধ ধর্মের অন্তর্ভুক্ত। তবে বাংলাদেশ থেকে কম্বোডিয়া আপনি কাজের উদ্দেশ্যে যেতে পারবেন।  এক্ষেত্রে বিভিন্ন কাজের ভিসা এবং টুরিস্ট ভিসার ক্ষেত্রে ভিসা প্রসেসিং এর ৫ থেকে ১০ হাজার টাকা পর্যন্ত খরচ হতে পারে।

অতএব আপনি যদি কোন একটি ভিসা  কম্বোডিয়া যেতে চান। তাহলে একজন ব্যক্তির বিমান ভাড়া সহ ভিসা প্রসেসিং ও যাবতীয় খরচ মোট ৬ থেকে ৮ লক্ষ টাকা পর্যন্ত খরচ হতে পারে। অতএব বিস্তারিত জানতে এই পোস্ট একদম শেষ পর্যন্ত দেখুন।

কম্বোডিয়ায় কোন কোন ভিসা পাওয়া যায়

যদি কম্বোডিয়াতে ভিসা পেতে চান এক্ষেত্রে কয়েকটি ক্যাটাগরির আপনি ভিসা পেয়ে যাবেন খুব সহজেই। তবে আপনাকে অনুসন্ধান করতে হবে এবং কোন এজেন্সিতে গিয়ে আপনাকে আবেদন করতে হবে। তবে সবসময়ই এসব ভিসা পেতে সরকারি এজেন্সি অথবা কোন প্রাইভেটে এজেন্সির সাথে যোগাযোগ করুন।

তবে কোন দালালদের সাহায্য নিয়ে এসব ভিসার সংগ্রহ করতে জানেন না। পরবর্তীতে সমস্যায় পড়তে পারেন। অতএব নিচে কয়েকটি ভিসার নাম উল্লেখ করা হয়েছে। যে বিষয়গুলো খুব সহজেই আপনি সংগ্রহ করতে পারবেন। তবে এর মধ্যে ওয়ার্ক পারমিট ভিসার মধ্যে বিভিন্ন কাজের ভিসা আপনি সংগ্রহ করতে পারেন।

  • টুরিস্ট ভিসা।
  • স্টিকার ভিসা।
  • স্টুডেন্ট ভিসা।
  • ওয়ার্ক পারমিট ভিসা।

কম্বোডিয়া কাজের ভিসা দাম কত

যদি কম্বোডিয়াতে কাজের ভিসা অর্থাৎ ওয়ার্ক পারমিট ভিসা পেয়ে থাকেন তাহলে বর্তমানে সর্বনিম্ন ৪ লক্ষ থেকে ৬ লক্ষ টাকা ভিসা প্রসেসিংয়ে খরচ হয়ে যায়। কিন্তু পূর্বে কাজের ভিসায় ২ লক্ষ থেকে ৩ লক্ষ টাকা হলেই সরাসরি কম্বোডিয়াতে যাওয়া যেত।

তবে কাজের বিষয় যেহেতু বিভিন্ন কাজের উদ্দেশ্যে আপনি কম্বোডিয়াতে যাবেন। সে ক্ষেত্রে ভালো টাকা ইনকাম করতে পারবেন। এবং বর্তমানে ৬ থেকে ৮ লক্ষ টাকা হলে ভিসা প্রসেসিং সহ যাবতীয় খরচ সম্পূর্ণ হয়ে যাবে। অর্থাৎ কম্বোডিয়াতে কাজের ভিসার দাম বর্তমানে ৬ লক্ষ থেকে ৮ লক্ষ টাকা।

কম্বোডিয়া টুরিস্ট ভিসা দাম কত

দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার একটি দেশ হতে কম্বোডিয়া। আর বাংলাদেশের থেকে কম্বোডিয়ার টাকার মান অনেক কম। তবে অর্থনৈতিক দিক দিয়ে প্রায় অনেকটা উন্নত বাংলাদেশের থেকে। তবে এই কম্বোডিয়া প্রাকৃতিক দিক দিয়ে এবং মানুষের স্থাপনার দিক দিয়ে বেশ সমৃদ্ধ।

এছাড়াও এখানে রয়েছে স্থাপত্যশৈলীর মন্দির, বন্য প্রাণীতে ভরপুর গহিন অরণ্য, পাহাড়, সমুদ্রসৈকত। এছাড়া ভ্রমণ করার জন্য এই কম্বোডিয়া অনেক বেশি উন্নত। আপনি যে কোন সময় এই কম্বোডিয়ার টুরিস্ট ভিসার সংগ্রহ করতে পারেন। তবে সংগ্রহ করতে অবশ্যই যে কোন এজেন্সি বা এয়ারলাইন্সের সাথে যোগাযোগ করতে হবে।

তবে আপনি যদি কম্পিউটার টুরিস্ট ভিসা আবেদন করতে চান এক্ষেত্রে প্রসেসিং এর সময় ৫ থেকে ৭ হাজার ৮ হাজার টাকা পর্যন্ত খরচ হতে পারে। অতএব ভিসার দাম অর্থাৎ কম্বোডিয়া পৌঁছাতে বিমান ভাড়া সহ যাবতীয় খরচ নিয়ে ভিসার দাম পড়বে ২ থেকে ৩ লক্ষ টাকা। বিস্তারিত জানতে আরো একটু নিচে প্রবেশ করুন।

কম্বোডিয়া কাজের বেতন

কোন কাজের বেতন কত তা নির্দিষ্ট করে বলা অসম্ভব। তবে একজন দক্ষ ব্যক্তি কম্বোডিয়াতে সর্বনিম্ন মাসে ৮০ হাজার থেকে ১ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ইনকাম করে থাকে। অর্থাৎ ৫০০ থেকে প্রায় ৬০০ ডলার। এবং যদি কোন ব্যক্তির কোন কাজের অভিজ্ঞতা কম থাকে তাহলে সেক্ষেত্রে তার বেতন সর্বনিম্ন ৪০ থেকে ৭০ হাজার টাকা নির্ধারিত হবে। তবে কম্বোডিয়াতে কনস্ট্রাকশন কাজের প্রচুর চাহিদা রয়েছে। 

এমনকি বাংলাদেশ থেকে খুব কম সংখ্যক মানুষ কম্বোডিয়াতে পৌঁছে থাকেন। তবে যদি কনস্ট্রাকশন কাজে আপনি কম্বোডিয়াতে পৌঁছে থাকেন তাহলে প্রতি মাসে আপনি সর্বনিম্ন ৮০ হাজার থেকে ১ লক্ষ ২০ হাজার টাকা পর্যন্ত অনায়াসে ইনকাম করতে পারবেন। এছাড়াও আপনার দক্ষতা এবং কাজের ধরন অনুযায়ী বেতনের হার পরিবর্তন হতে পারে।

শেষ কথা

আশা করতেছি আপনারা ইতিমধ্যে কম্বোডিয়া ভিসার দাম কত বিস্তারিত আমাদের এই পোস্ট থেকে জানতে পেরেছেন। তবে বিস্তারিত এখানে আলোচনা না করা হলেও সংক্ষিপ্ত আকারে আপনাদেরকে কম্বোডিয়ার ভিসা সম্পর্কিত সকল তথ্য এখানে উল্লেখ করা হয়েছে। আপনি যদি এই পোস্ট থেকে উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে আপনার আশেপাশের ব্যক্তিদেরকে এই পোস্ট শেয়ার করে জানিয়ে দিন। ধন্যবাদ

Ashraful Islam
Ashraful Islam
Articles: 253

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *